• No products in the cart.

রেজর ব্লেড বিজনেস মডেল – যেভাবে লসে প্রোডাক্ট সেল করে প্রোফিট করবেন

আপনি কী জানেন ‘সনি তাদের প্রতিটি প্লেস্টেশন গেমিং কনসোল বিক্রিতে ৬০ ডলার করে লস দিচ্ছে?

অর্থাৎ আপনি যদি সনির একটা প্লে-স্টেশন গেমিং কনসোল কিনেন তাহলে মনে রাখবেন আপনি যে দামে কিনেছেন তার থেকে ঐটার প্রোডাকশন খরচ ৬০ ডলার, অর্থাৎ বাংলা টাকায় ৫০০০ টাকা বেশি ছিল।

স্বভাবতই প্রশ্ন জাগতে পারে, কিভাবে সনি এতোদিন ধরে লসে কনসোল বিক্রি করে বিজনেস অপারেট করছে, আর প্রতি বছর বিলিয়ন ডলার প্রফিট করছে! BuzzWords এর আজকের এপিসোডে আমরা এই বিজনেস মডেল নিয়েই কথা বলবো।

আমরা অনেক সময়ই ফ্রিতে মোবাইলে গেইম খেলি, বা কোনো একটা সার্ভিস ইউজ করি, কিন্তু কখনো ভেবে দেখেছেন গেম কোম্পানি কেন ফ্রি তে গেমস বা সার্ভিসটি দিচ্ছে?

তারা মূলত Gillette কোম্পানির রেজার ব্লেড মডেল ফলো করে, Gillette ১৯২৩ সালে ১২৭% সেলস গ্রোথ নিশ্চিত করে সিম্পলি এই টেকনিক ফলো করে।

এই মডেলের মূল বক্তব্য হলো মূল প্রোডাক্টটি কম দামে বিক্রি করে, এডিশনাল প্রোডাক্টগুলো বেশি দামে বিক্রি করা। সহজভাবে বলতে গেলে রেজার কম দামে বিক্রি করে ব্লেড গুলো বেশি দামে বিক্রি করা, কারণ আপনি রেজার কিনবেন একবার কিন্তু ব্লেড আপনাকে বার বার কিনতে হবে। এতে করে মূল প্রোডাক্ট থেকে প্রফিট কম হলেও এডিশনাল প্রোডাক্ট থেকে অনেক বেশি প্রফিট করে কোম্পানিগুলো। 

এভাবেই সনি একটা প্লে-স্টেশন গেমিং কনসোল ৬০ ডলার লস দিয়ে বিক্রি করলেও সিডি এবং সাবক্রিমশন ফি দিয়ে বিলিয়ন ডলার আয় করছে, সেম স্ট্যাটেজি গেমগুলো এবং বিভিন্ন  অ্যাপ  ফলো করছে, ডাউনলোড করছেন ফ্রি কিন্তু স্পেশাল জিনিসপত্র কিনতে হলে আপনাকে পে করতে হচ্ছে এবং অ্যাপগুলো আপনাকে অ্যাড দেখিয়ে টাকা আর্ন করছে।

কেমন লাগলো আজকের এপিসোড, এই ধরনের আরো কনটেন্ট পেতে লাইক, কমেন্ট, সাবস্ক্রাইব করে আমাদের পাশে থাকুন।

June 20, 2021